যারা নৌকা ঠেকাতে চায় তারা রাজাকারদের ক্ষমতায় আনতে চায়: শেখ হাসিনা

0
262

ডেইলি২৪বিডি-ঢাকাঃ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, “নৌকা প্রতীক জনগণের ভাগ্য পরিবর্তনের প্রতিক। নৌকা এদেশের স্বাধীনতা এনে দিয়েছে, নৌকা এদেশকে ডিজিটাল আধুনিক বাংলাদেশ গড়ে দিয়েছে, নৌকা মানুষের ভোটের ও ভাতের অধিকার প্রতিষ্ঠা করেছে। এরপরও যারা নৌকা ঠেকাতে চায় তারা এদেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব বিরোধী এবং নৌকা ঠেকিয়ে তারা রাজাকারদেরকে ক্ষমতায় আনতে চায়।”

আজ সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে প্রদত্ত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে এ কথা বলেন তিনি। তিনি বলেন, “আমি জনগণের সেবক, জনগণ কি পেল সেটাই আমার কাছে বড় পাওয়া। আমার কোন সংবর্ধনার প্রয়োজন নেই। আমি দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন চাই”।

সরকারের বিভিন্ন পর্যায়ে নিয়োজিত ব্যাক্তিদেরকে দেশের উন্নয়নে অবদান রাখার জন্য ধন্যবাদ জানান এবং ভবিষ্যতে আরও কর্তব্যপরাণয়তার সাথে কাজ করার আহ্বান জানান এবং দেশের উন্নয়নের জন্য নিজের করে যাওয়া পরিশ্রমের কথা উল্ল্যেখ করেন। তিনি বলেন, “দিনের ২৪ ঘন্টার মধ্যে শুধু ৫ ঘন্টা ঘোমাই। বাকি সময় শুধু দেশের উন্নয়নের জন্য কাজ করি। আমি কোথাও বেড়াতেও যাইনা, কোন ব্যাক্তিগত কাজও রাখিনা। দেশের মানুষের ভাল থাকাই আমার ভাল থাকা”।

মাদক নির্মুল অভিযান অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়ে দেশনায়ক শেখ হাসিনা বলেন, ” একটি পরিবারের একজন যখন মাদকাসক্ত হয় তখন গোটা পরিবারটিই ধ্বংস হয়ে যায়। পরিবার, সমাজ, রাষ্ট্র ধ্বংস করে দিতে পারে এই মাদক। তাই সন্ত্রাস, জঙ্গীবাদের পাশাপাশি মাদক নির্মূল অভিযান অব্যাহত থাকবে। আমাদের যুব সমাজকে ধ্বংসের হাত থেকে রক্ষা করতে মাদক নির্মূলের বিকল্প নেই”।

উল্লেখ্য,উল্লেখ্য, মহাকাশে বাংলাদেশের প্রথম স্যাটেলাইট বঙ্গবন্ধু-১ এর সফল উৎক্ষেপন, সল্পোন্নত দেশ থেকে বাংলাদেশের উন্নয়নশীল দেশে উন্নিত হওয়া, অষ্ট্রেলিয়ায় উইমেন্স লিডারশীপ অ্যাওয়ার্ড প্রাপ্তি এবং সর্বশেষ ভারতের কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ডি’লিট ডিগ্রি অর্জন সহ সরকারের অভাবনীয় সাফল্যে অসাধারণ অবদান রাখায় শেখ হাসিনাকে এই গণ-সংবর্ধনা দেয় বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here